কক্সবাজারে প্রবাসীর স্ত্রী হোটেলে ফুর্তি করতে এসে পরকিয়া প্রেমিকের হাতে প্রতারিত

কক্সবাজারে প্রবাসীর স্ত্রী হোটেলে ফুর্তি করতে এসে পরকিয়া প্রেমিকের হাতে প্রতারিত

নিউজ ডেস্ক::কক্সবাজার সদরের ঈদগাঁও এলাকার এক প্রবাসীর স্ত্রী তার পরকিয়া প্রেমিকের সাথে কক্সবাজার শহরের কলাতলি সুগন্ধা পয়েন্ট এলাকায় এসআর গেস্ট হাউসে ফুর্তি করতে এসে প্রতারণা শিকার হয়েছে। প্রবাসীর স্ত্রীর প্রেমিক তাকে ওই গেস্ট হাউসে নিয়ে গিয়ে চেতনা নাশক ওষুধ খাইয়ে স্বর্ণালংকার ও দামী মোবাইল নিয়ে সরে পড়ে বলে জানা যায়।

অবচেতন অবস্থায় ওই প্রবাসীর স্ত্রীকে উদ্ধার করে কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বর্তমানে ওই গৃহবধু জেলা সদর হাসপাতালের ৫ম তলায় চিকিৎসাধীন। হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়ে সেই গৃহবধু এখন অনেকটা জ্ঞান ফিরে পেয়েছে। সেই ঈদগাঁও জাগীর পাড়া এলাকার প্রবাসী রাসেল এর স্ত্রী সুমি আক্তার (৩০) বলে জানা যায়। এঘটনায় পুরো এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

এস আর গেস্ট হাউস কতৃপক্ষ সুত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার সকাল সাড়ে এগার টার দিকে তারা গেস্ট হাউসে আসেন। গেস্ট হাউস রেজিষ্ট্রারে তাদের নাম এন্ট্রি করেন। এন্ট্রি খাতার তারা পরিচয় দিয়েছেন, চকরিয়া বাটাখালী এলাকার সুমি আক্তার ও তার স্বামী হিসেবে নাম লেখান শামিম (৩০) ।

তারা আরো জানায়, স্বামী পরিচয় দানকারী শামীম রুম ছেড় রাত সাড়ে নয়টার দিকে রুম থেকে বের হয়ে যান। এরপর পরই গেস্ট হা্‌ুউস রুম বয় রুমে গিয়ে দেখতে পায় সুমি আক্তার অবচেতন অবস্থায় পড়ে আছে। তাকে অনেক ডাকা ডাকি করার পরেও ঘুম থেকে না জাগায়, গেস্ট হাউস ম্যানেজার তাকে দ্রূত জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসেন। বর্তমানে ওই প্রবাসীর স্ত্রী জেলা সদর হাসপাতালের ৫ম তলায় চিকিৎসাধীন।

সুমি আক্তার জানান, তার স্বামী প্রবাসী রাসেল। তার স্বামীর বাড়ি কক্সবাজার সদরের ঈদগাও জাগীর পাড়া এলাকায়। তার সাথে প্রতারণাকারী পরকিয়া প্রেমিক তাকে চেতনা নাশক ওষুধ সেবন করিয়ে তার প্রবাসী স্বামী রাসেলের দেয়া তিন ভরি স্বর্ণালংকার ও একটি দামী স্যামসাং মোবাইল ফোন নিয়ে পালিয়ে যায় ।

সম্পাদক ও প্রকাশক: মো: কামাল উদ্দিন
মোবাইল: ০১৮১৯০৩২০৯০
৬০/বি, পুরানা পল্টন, ঢাকা-১০০০ হইতে প্রকাশিত। মোবাইল: 01819032090, ইমেইল: amaderodhikar@gmail.com